রবিবার,১৫ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং


সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য ভোটকেন্দ্র পাহারা দিতে হবে : ড. কামাল


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
০১.১২.২০১৮

ডেস্ক রিপোর্টঃ  জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ড. কামাল হোসেন বলেছেন, সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য সুষ্ঠু নির্বাচনী পরিবেশ প্রয়োজন। নির্বাচন সুষ্ঠু করতে জনগণকে ভোটকেন্দ্র পাহারা দিতে হবে। তফসিল ঘোষণার পর এ পর্যন্ত বিরোধী নেতাকর্মীদের ৬৮১জনকে গায়েবি মামলায় গ্রেফতার করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর প্রতুশ্রুতির বাস্তবায়ন করতে হবে। নির্বাচন কমিশন দ্বারা অপ্রাসঙ্গিক বিধি নিষেধের জন্য প্রয়োজন হলে আদালতের আশ্রয় নেয়া হবে।

শনিবার বিকেলে নির্বাচন ও চলমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

কামাল হোসেন বলেন, অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের কথা সংবিধানে লেখা আছে। তাই নির্বাচন কোনও খেয়াল- খুশির ব্যাপার না। ক্ষমতায় গেলে সংবিধান অক্ষরে অক্ষরে পালন করবে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট।

তিনি বলেন, জনগণকে সক্রিয়ভাবে দেশ শাসনে অংশগ্রহণ করতে হবে। শুধু একদিন ভোট দিয়ে তাদের দায়িত্ব শেষ হয় না। মালিকরা যদি তাদের সঠিক প্রতিনিধি নির্বাচন না করেন, তবে তারা বঞ্চিত হন। সেই দায়িত্ব মনে রেখে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। নির্বাচন যেন সুষ্ঠভাবে হয়, সেটা জনসাধারণকে মালিক হিসেবে পাহারা দিতে হবে।

এ আইনজীবী বলেন, অবাধ নিরপেক্ষ নির্বাচনকে বাধা দেয়া হবে বলে শোনা যাচ্ছে। বাধা দিলে নির্বাচনের প্রক্রিয়াকে রক্ষা করতে হবে। বুথ খোলার সঙ্গে সঙ্গে আপনারা সেখানে উপস্থিত হবেন। পরিবারকে নিয়ে ভোট দেবেন।

দলীয় আনুগত্য ও ভয়-ভীতির ঊর্ধ্বে উঠে কাজ করার জন্য নির্বাচন কমিশনের প্রতি আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আমরা কঠিন চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি।

সংবাদ সম্মেলনে ড. কামাল হোসেন ছাড়াও কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের মুখপাত্র মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, তফসিল ঘোষণার পরও গায়েবি মামলা ও গ্রেফতার বন্ধ হয়নি, এ অবস্থায় নির্বাচনের লেভেল প্লেইং ফিল্ড তৈরি হয়নি, এসব বন্ধ না হলে, বৃহত্তর কর্মসূচী দিতে বাধ্য হবে ঐক্যফ্রন্ট।

এতে আরও উপস্থিত ছিলেন কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, ডাকসুর সাবেক ভিপি সুলতান মোহাম্মদ মনসুর, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, গণফোরামের কার্যকরী সভাপতি সুব্রত চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মহসীন মন্টু প্রমুখ।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি