রবিবার,৮ই ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং


ম্যাজিসিয়ান মেসির হ্যাটট্রিকে বার্সার বড় জয়


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
১০.১১.২০১৯

স্পোর্টস ডেস্কঃ

আরো একবার জাদু দেখালেন লিওনেল মেসি। ম্যাচের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত দ্যুতি ছড়ালেন তিনি। করলেন দুর্দান্ত হ্যাটট্রিক। তার অনন্য নৈপুণ্যে সেল্টা ভিগোকে ৪-১ গোল হারিয়েছে বার্সেলোনা। হ্যাটট্রিকের দুটি গোলই অসাধারণ ফ্রি-কিক থেকে করেছেন ছোট ম্যাজিসিয়ান। বাকি গোলটি করেছেন সার্জিও বুসকেটস।

শনিবার রাতে ঘরের মাঠ ন্যু ক্যাম্পে শুরুটা দারুণ করে বার্সা। সূচনালগ্ন থেকেই সেল্টা ভিগোকে চেপে ধরে তারা। একের পর এক আক্রমণে প্রতিপক্ষের ওপর আধিপত্য বিস্তার করেন স্প্যানিশ জায়ান্টরা। যদিও সাফল্য পেতেও একটু সময় লাগে।

২৩ মিনিটে পেনাল্টি বক্সের ভেতরে বাম পাশ দিয়ে সতীর্থকে ক্রস দেন জুনিয়র ফিরপো। সেটি ঠেকাতে গিয়ে হাতে লাগে জোসেপ আইসোর। ফলে পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি। সফল স্পট কিক থেকে লক্ষ্যভেদ করে দলকে এগিয়ে দেন মেসি।

পিছিয়ে পড়ে আক্রমণের গতি বাড়ায় সেল্টা। ফলে খেলা ওপেন হয়ে যায়। এবার সমতায় ফেরেন অতিথিরা। ৪২ মিনিটে তাদের এক খেলোয়াড়কে অযাচিত ফাউল করেন মেসি। ফলে ফ্রি-কিক পান তারা। তা থেকে দারুণ এক গোল করে সেল্টাকে সমতায় ফেরান লুকাস ওলাজা।

তবে ছেড়ে কথা বলেননি মেসি।পরক্ষণেই ভুলের প্রায়শ্চিত করেন তিনি। প্রথমার্ধের ইনজুরি টাইমে ফ্রি-কিক পায় বার্সা। সেটি থেকে দৃষ্টিনন্দন এক গোলে কাতালানদের ২-১ গোলের লিড এনে দেন অধিনায়ক।

বিরতির আগে যেখান থেকে শেষ করেছিলেন পরে ঠিক সেখান থেকেই শুরু করেন মেসি। ৪৮ মিনিটে ফ্রি-কিক থেকে আবারো বুদ্ধিদীপ্ত চোখধাঁধানো গোল করেন তিনি। এতে লা লিগায় সর্বোচ্চ ৩৪টি হ্যাটট্রিক পূরণ করেন আর্জেন্টাইন ফুটবল জাদুকর।

৭২ মিনিটে উসমানে ডেম্বেলের পাস থেকে অল্পের জন্য নিজের চতুর্থ গোল থেকে বঞ্চিত হন মেসি। তবে বার্সা খেলায় গতি কমেনি। বরং সময়ের সঙ্গে সঙ্গে আরো ছন্দময় ফুটবল উপহার দেয় তারা। ফলে ব্যবধানও বাড়ে। ৮৫ মিনিটে পেনাল্টি ডি-বক্সের বামদিকে দিয়ে ডেম্বেলের দেয়া ক্রস বিপদমুক্ত করতে পারেনি সেল্টার ডিফেন্ডার। বল পেয়ে যান বুসকেটস। ডান পায়ের জোরালো শটে বল জালে জড়ান তিনি।

বাকি সময়ে আর গোলের দেখা পাননি স্বাগতিকরা। এতে ৪-১ গোলের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন তারা। এ জয়ে ১২ ম্যাচে ২৫ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে উঠে এসেছেন আর্নেস্তো ভালভার্দের শিষ্যরা। সমান ম্যাচে একই পয়েন্ট নিয়ে গোল ব্যবধানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি