শনিবার,৪ঠা এপ্রিল, ২০২০ ইং
  • প্রচ্ছদ » খেলা » বোনের মৃত্যুতে দমেনি আকবর, আনন্দে কাঁদলেন মা-বাবা


বোনের মৃত্যুতে দমেনি আকবর, আনন্দে কাঁদলেন মা-বাবা


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
১০.০২.২০২০

ডেস্ক রিপোর্টঃ

বোনের মৃত্যুতে দমেনি আকবর আলী। শোককে পরিণত করেছে শক্তিতে। এ রকমই একটি ত্যাগ স্বীকার করে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন বাংলাদেশের যুব বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক আকবর আলী। শুধু তাই নয়, বাংলাদেশের বিশ্বকাপ জয়ের আশা যখন নিভু নিভু অবস্থায়। তখন শক্ত হাতে ব্যাট ধরে অপরাজিত ৪৩ রানের ইনিংস খেলে দলকে জয়ের দ্বারে পৌঁছে দেন তিনি। শেষ পর্যন্ত তারই হাতে শোভা পায় চ্যাম্পিয়নের ট্রফি।

আকবর আলীর পারিবার বলছে, গত ২২ জানুয়ারি যমজ সন্তান জন্ম দেয়ার সময় মারা যান তার বোন। আফ্রিকা বসেই এ শোকের খবর পান অধিনায়ক আকবর আলী। তবে তিনি ভেঙে পড়েননি। শোককে পরিণত করেন শক্তিতে। এভাবেই তিনি হয়ে ওঠেন দুর্জয়।

ছেলের জয়ে আকবরের মা সাহিদা আক্তার বলেন, আমার ছেলে (আকবর আলি) জয় নিয়ে দেশে ফিরবে এই পণ করে খেলতে গিয়েছিল। ছেলে আমার অদম্য। ওর ইচ্ছে পূর্ণ হয়েছে। সঙ্গে আমরা একটা বিশ্বকাপ পেলাম। তার এ জয় পুরো দেশবাসীর।

টিভির পর্দায় সারাক্ষণ তাকিয়ে থাকা আকবরের বাবা মোস্তফা বলেন, আমি কান্না থামাতে পারছি না। এ কান্না খুশির কান্না। আল্লাহ তার ওপর রহমত করেছেন বলেই আজ আকবর পুরো বিশ্বে দেশের নাম উজ্জ্বল করেছে। এ সময় তিনি সবার কাছে তার ছেলের জন্য দোয়া চেয়ে বলেন, আমার ছেলে স্বপ্ন দেখতো দেশের হয়ে খেলবে। সেই স্বপ্ন পূরণ হয়েছে। ওর ইচ্ছে ছিল জয় ছিনিয়ে আনবে। দৃঢ় মনোবলে সেই স্বপ্ন পূরণ করেছে।

এদিকে বাংলাদেশ দলের বিজয় নিশ্চিত হওয়ার আগ থেকেই আকবরের বাড়ি রংপুরের পশ্চিম জুম্মাপাড়ায় সংবাদকর্মীসহ অসংখ্য শুভাকাঙ্ক্ষীর ঢল নামে। পরে বিজয় আনন্দে প্রকম্পিত হয়ে ওঠে বাড়িসহ পুরো এলাকা। জয় উৎসবে রংপুরের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আনন্দ মিছিল এসে তার বাড়ির সামনে যুক্ত হয়।

রোববার (৯ ফেব্রুয়ারি) দক্ষিণ আফ্রিকার মাটিতে ফাইনালে ভারতকে হারিয়ে বাংলাদেশের অনূর্ধ্ব-১৯ দলের বিশ্বকাপ জয়ের পর নিজ বাড়িতে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

আকবর আলী ২০০১ সালের ৮ অক্টোবর রংপুর জেলা সদরের পশ্চিম জুম্মাপাড়ায় জন্ম গ্রহণ করেন। বাবা মোহাম্মদ মোস্তফা এবং মা শাহিদা বেগমের ৫ সন্তানের মধ্যে সবার ছোট আকবর। তিনি বিকেএসপি থেকে এইচএসসি পাশ করে বর্তমানে আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ থেকে বিবিএ করছেন।

উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান আকবর আলীর গত বছর ৮ মার্চ আবাহনীর হয়ে লিস্ট এতে অভিষেক হয়। এরপর লিস্ট এতে ১৩টি ম্যাচ খেলেছেন। রান করেছেন ২২.৬৬ গড়ে ২২৯। দুটি টি-২০তে করেছেন ৮৫ রান। অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে আকবরের ইনিংসগুলো হল- ১২, ২৩, ৫, ১৬, ৫, এবং ৪৩। উইকেটের পেছনে থেকে ৭টি ক্যাচ নেয়ার পাশাপাশি ১টি স্ট্যাম্পিং করেছেন।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি