বৃহস্পতিবার,২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


পরকীয়া সন্দেহে স্ত্রীকে হত্যা, ভুল প্রমাণিত হওয়ায় স্বামীর আত্মহত্যা


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
০৪.০৬.২০১৭

পূর্বাশা ডেস্ক:
সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলায় পরকীয়া সন্দেহে স্ত্রীকে শ্বশুরবাড়িতে শ্বাসরোধে হত্যার পর পরকীয়া ভুল প্রমাণিত হওয়ায় স্ত্রীর কবরের পাশে গিয়ে বিষ পানে আত্মহত্যা করেছেন স্বামী। শনিবার ভোরে উপজেলার দেয়াড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। স্ত্রীর নাম তহমিনা খাতুন ও স্বামীর নাম মনিরুল ইসলাম (২৮)। কলারোয়া থানার ওসি বিপ্লব কুমার নাথ জানান, ভোররাতে স্ত্রী তহমিনা খাতুনের কবরের পাশে গিয়ে বিষ পান করেন মনিরুল। কবরস্থানের পাশে তার গোঙানির আওয়াজ শুনে স্থানীয় লোকজন পুলিশে খবর দেন। পুলিশ তাকে উদ্ধার করে কলারোয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। এর আগে বৃহস্পতিবার ভোররাতে দেয়াড়া গ্রামে শ্বশুরবাড়িতে তহমিনাকে শ্বাসরোধে হত্যা করে পালিয়ে যান বলে মনিরুলের বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠে। তার বাড়ি যশোর জেলার ঝিকরগাছার রাজবাড়ি গ্রামে। তহমিনার নানি আনোয়ারা বেগম বাদী হয়ে মনিরুলের বিরুদ্ধে কলারোয়া থানায় মামলা করেছিলেন। কলারোয়ার দেয়াড়া ইউপির সদস্য মোজাম্মেল হোসেন বলেন, পরকীয়া সন্দেহে স্ত্রীকে হত্যা করেন মনিরুল। পরে জানতে পারেন, তার সন্দেহ ঠিক না। সেই অনুশোচনা থেকে তিনি আত্মহত্যা করে থাকতে পারেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।
পূর্বাশানিউজ/০৪-জুন,২০১৭/রুমকী


এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি