রবিবার,১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


ইসরাইলের ওপর ভিসা নিষেধাজ্ঞার হুমকি জো বাইডেনের


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
১৯.১১.২০২৩


ডেস্ক রিপোর্ট:

গাজা উপত্যকায় হামাসের সঙ্গে যুদ্ধকে জের হিসেবে ধরে নিয়ে ফিলিস্তিনের পশ্চিমতীর অঞ্চলে গত দেড় মাস ধরে অভিযান চালাচ্ছে ইসরাইলি প্রতিরক্ষা বাহিনী (আইডিএফ)। ইসরাইলের সেসব সরকারি কর্মকর্তা অভিযানকে সহিংস করার নির্দেশ দিচ্ছেন, তাদের ওপর ভিসা বিধিনিষেধ আরোপের হুমকি দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

শনিবার অন্যতম শীর্ষ মার্কিন দৈনিক ওয়াশিংটন পোস্টে লেখা এক অপ-এড কলাম (ব্যক্তিগত মন্তব্য) বিভাগে বাইডেন লিখেছেন, ‘আমি ইসরাইলের নেতাদের জোরালোভাবে বলছি— পশ্চিমতীরে ব্যাপক সহিংসতা চলছে এবং অবশ্যই তা বন্ধ করতে হবে। যদি তা না হয়, সে ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র তার নিজস্ব বিভিন্ন পদক্ষেপ নেওয়ার প্রস্তুতি শুরু করতে বাধ্য হবে। সেসব পদক্ষেপের মধ্যে ভিসা নিষেধাজ্ঞাও অন্তর্ভুক্ত।’

প্রসঙ্গত, ভিসা ওয়েইভার প্রোগ্রাম নামের একটি মার্কিন কর্মসূচির সঙ্গে যুক্ত ইসরাইল। যেসব রাষ্ট্র এই কর্মসূচিতে যোগ দিয়েছে, সেসব দেশের যাত্রী ও ভ্রমণকারীরা ভিসা ছাড়াই যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করতে পারেন। গত অক্টোবরে এই কর্মসূচিতে যোগ দিয়েছে ইসরাইল।

যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ইসরাইল যদি পশ্চিমতীরে সহিংসতা অব্যাহত রাখে, সে ক্ষেত্রে ভিসা ওয়েইভার প্রোগ্রাম থেকে ইসরাইলকে বাদ দেওয়াসহ দেশটির রাজনীতিবিদ ও সামরিক-সরকারি কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে ভিসা বিধিনিষেধ জারি করার মতো ‘যথেষ্ট সুযোগ’ মার্কিন সরকারের হাতে রয়েছে।

ওয়াশিংটন পোস্টে লেখা মন্তব্যে আরও একবার হামাস-ইসরাইল যুদ্ধ অবসানে দ্বিরাষ্ট্র সমাধানের (টু স্টেট সলিউশন) ওপর জোর দিয়েছেন বাইডেন। তবে গাজায় যুদ্ধবিরতি আহ্বানের পক্ষে বা বিপক্ষে সংক্রান্ত কোনো মন্তব্য তিনি করেননি।

গত ৭ অক্টোবর ভোরে ইসরাইলে অতর্কিত হামলা চালান গাজা উপত্যকার নিয়ন্ত্রণকারী গোষ্ঠী হামাসের যোদ্ধারা। উপত্যকার উত্তরাঞ্চলীয় ইরেজ সীমান্ত বেড়া ভেঙে ইসরাইলে প্রবেশ করে নির্বিচারে সামরিক-বেসামরিক লোকজনকে হত্যা করে তারা। সেই সঙ্গে জিম্মি হিসেবে গাজায় ধরে নিয়ে যায় ২৪২ জন ইসরাইলি ও অন্যান্য দেশের নাগরিককে।

প্রসঙ্গত, গাজায় বোমাবর্ষণ শুরুর দিন থেকে পশ্চিমতীর অঞ্চলেও অভিযান শুরু করেছে ইসরাইলি সেনা ও নিরাপত্তা বাহিনী। গত দেড় মাস ধরে চলমান এ অভিযানে ইসরাইলি বাহিনীর সহিংসতায় পশ্চিমতীরের বিভিন্ন শহরে প্রাণ হারিয়েছেন দেড় শতাধিক ফিলিস্তিনি।

এ যুদ্ধের শুরু থেকেই ইসরাইলের প্রতি অকুণ্ঠ সমর্থন জানিয়ে আসছে যুক্তরাষ্ট্র। ইসরাইল ও ইউক্রেনকে সামরিক সহায়তা বাবদ ১০ হাজার ৫০০ কোটি ডলার দেওয়ার জন্য গত মাসে যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্ট কংগ্রেসকে অনুরোধও জানিয়েছেন জো বাইডেন।

সূত্র: সিএনএন



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি