রবিবার,২০শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ


হবু স্ত্রীকে লঞ্চ থেকে আনতে গিয়ে পুলিশ কর্মকর্তার মৃত্যু


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
০৬.০৬.২০২১

ডেস্ক রিপোর্টঃ

মুন্সীগঞ্জ থেকে সরজ নামের এক তরুণী ঢাকায় আসছিলেন লঞ্চে করে। তাঁকে এগিয়ে আনতে ঢাকার সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনালে যান পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) শাওলিন আকিব। যে লঞ্চে সরজ আসছিলেন, সেই লঞ্চে উঠতে যান আকিব। সে সময় সিঁড়ি থেকে পা পিছলে নদীতে পড়ে নিহত হন তিনি। ঘটনাটি আজ রোববার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ঘটে।

সন্ধ্যায় বিষয়টি জানান পুলিশের বিশেষ শাখার (এসবি) এসআই রুবেল মল্লিক। তিনি বলেন, ‘শাওলিন আকিবের পরিবারের কাছ থেকে জেনেছি, সরজ নামের ওই তরুণীর সঙ্গে তাঁর বিয়ের কথা-বার্তা চলছিল পারিবারিকভাবে।’

শাওলিন আকিব রাজধানীর মালিবাগে পুলিশের এসবিতে কর্মরত ছিলেন। তাঁর বয়স ২৭ বছর। তিনি পুলিশের ৩৭ ব্যাচের এসআই হিসেবে বাংলাদেশ পুলিশে যোগ দেন। আকিবের আপন এক ভাইও এসবিতে কর্মরত রয়েছেন। এ ছাড়া আকিবের বাবা অবসরপ্রাপ্ত কনস্টেবল রফিকুল ইসলাম। তাদের গ্রামের বাড়ি মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া উপজেলায়। আর সরজের গ্রামের বাড়ি ময়মনসিংহে।

এসআই রুবেল মল্লিক বলেন, ‘সকাল সাড়ে ৭টার দিকে একটি লঞ্চ সদরঘাট টার্মিনালে এসে পৌঁছায়। ওই লঞ্চে ছিলেন সরজ। কিন্তু তখন ঘাটে আরেকটি লঞ্চ ভেড়ানো ছিল। ফলে ঘাটে ভেড়ানো থাকা ওই লঞ্চটির পেছনে তা লাগিয়ে রাখা হয়। সে সময় শাওলিন আকিব সিঁড়ি দিয়ে পন্টুন হয়ে ভেড়ানো লঞ্চে উঠতে যান। কিন্তু বৃষ্টির কারণে পিচ্ছিল হয়ে থাকায় সিঁড়ি থেকে পড়ে যান বুড়িগঙ্গা নদীতে। তাঁকে একজন উদ্ধার করার চেষ্টা করেছিলেন, কিন্তু তিনি তলিয়ে যান নিচে।’

রুবেল মল্লিক আরও বলেন, ‘পরে ঘটনাস্থলে ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স ও নৌ-পুলিশের সদস্যরা গিয়ে যখন শাওলিন আকিবকে উদ্ধার করেন, তার মধ্যে তিনি মারা যান। উদ্ধারকারী দলের ধারণা, আকিব পা পিছলে পড়ে যাওয়ার সময় তাঁর মাথায় আঘাত লাগে।’

বিআইডব্লিউটিএর যুগ্ম পরিচালক মো. জয়নাল আবেদীন বলেন, ‘সকালে একজন এসআই পানিতে পড়ে যান। তাঁর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মিটফোর্ড হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি