রবিবার,২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • প্রচ্ছদ » জাতীয় » ১২০ টাকা কেজির পেঁয়াজ পরের দিন কীভাবে ২০০ টাকা হয়? প্রশ্ন বাণিজ্য সচিবের


১২০ টাকা কেজির পেঁয়াজ পরের দিন কীভাবে ২০০ টাকা হয়? প্রশ্ন বাণিজ্য সচিবের


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
১০.১২.২০২৩

ডেস্ক রিপোর্ট:

১২০ টাকা কেজির পেঁয়াজ পরের দিন কীভাবে ২০০ টাকা হয়ে গেল, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ সচিব তপন কান্তি ঘোষ।

আজ রবিবার রাজধানীর আগারগাঁওয়ে রাজস্ব ভবনে ভ্যাট দিবস উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে জ্যেষ্ঠ সচিব এ প্রশ্ন তোলেন। জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

জ্যেষ্ঠ সচিব বলেন, ‘ভারত সরকার পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করল, আর দেশে এক দিনের ব্যবধানে পেঁয়াজের দাম হঠাৎ করে ৭০ থেকে ৮০ টাকা বেড়ে গেছে। এটা ব্যবসায়ীদের দায়িত্বশীল আচরণ নয়? ব্যবসায়ীদের বুঝতে হবে দেশের জনগণের জন্যই ব্যবসা।’

তপন কান্তি ঘোষ বলেন, ‘যিনি এক দিন আগে ১২০ টাকা কেজিতে পেঁয়াজ বিক্রি করলেন, পরের দিন কীভাবে সেটার দাম ২০০ টাকা হয়ে গেল। দাম বাড়তে তো সময় লাগার কথা। কিন্তু এ ক্ষেত্রে ব্যবসায়ীরা বাড়তি লাভের আশায় কোনো নৈতিকতাই রাখলেন না। নিত্যপণ্যের সংকট তৈরি হলেই অনেক ব্যবসায়ী এর সুযোগ নিয়ে থাকেন।’

ব্যবসায়ীদের উদ্দেশে তিনি আরও বলেন, ‘লাভ ছাড়া তো ব্যবসা করবেন না। কিন্তু যে পণ্যের মূল্য ১২০ টাকা, এক রাতের মধ্যে পেঁয়াজের দাম ২০০ টাকা কীভাবে হয়? ভারত রপ্তানি বন্ধ মাত্রই ঘোষণা দিয়েছে, সে কারণে পরদিনই দাম বাড়তে পাড়ে না।’

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন এফবিসিসিআই সভাপতি মাহবুবুল আলম, অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগের সচিব ড. মো. খায়েরুজ্জামান মজুমদার। মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ভ্যাটনীতির সদস্য জাকিয়া সুলতানা। সভাপতিত্ব করেন অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের সিনিয়র সচিব ও জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি