রবিবার,২৯শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ


এক বছরে মোদির বিদেশ ভ্রমণ খরচ ৩৭ কোটি রুপি


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
০৭.০৯.২০১৫

Modi_amir

ডেস্ক রিপোর্ট :

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রথম বছরেই বিদেশ সফর খাতে খরচ হয়েছে ৩৭ কোটি ২২ লাখ রুপি। ২০১৪ সালের জুন থেকে ২০১৫ সালের জুন পর্যন্ত ২০টি দেশ সফর করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

যেসব দেশে সবচেয়ে বেশি খরচ হয়েছে তার মধ্যে রয়েছে অস্ট্রেলিয়া, যুক্তরাষ্ট্র, জার্মানি, ফিজি ও চীন। সবচেয়ে কম খরচ হয়েছে ভুটান সফরে। এর পরিমাণ ৪১ লাখ ৩৩ হাজার রুপি। এ সময়ে অস্ট্রেলিয়া সফরে প্রধানমন্ত্রী ও তার সফরসঙ্গীদের থাকা বাবদ হোটেল খরচ হিসেবে পরিশোধ করেছে ৫ কোটি ৬০ লাখ রুপি। গাড়ি ভাড়া বাবদ খরচ করা হয়েছে ২ কোটি ৪০ লাখ রুপি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নিউ ইয়র্ক সফর করেন গত বছর সেপ্টেম্বরে। সেখানে প্রধানমন্ত্রীর এসপিজি এর থাকা বাবদ হোটেল খরচ হয় ৯ লাখ ১৬ হাজার রুপি। প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা ও প্রধানমন্ত্রীর অফিসের কর্মকর্তাদের হোটেল খরচ বাবদ খরচ হয ১১ লাখ ৫১ হাজার রুপি।

টাইমস অব ইন্ডিয়ার খবরে বলা হয়, নিউ ইয়র্কে অবস্থানকালে প্রধানমন্ত্রীর সফরসঙ্গীরা ছিলেন নিউ ইয়র্ক প্যালেস হোটেলে। এসপিজি প্রতিনিধিদের গাড়িভাড়া বাবদ খরচ হয় ৩৯ লাখ রুপি। ৩ লাখ রুপি খরচ হয় প্রধানমন্ত্রীর সফর কাভারেজ করার জন্য ‘প্রসার ভারতী’র জন্য। জার্মানিতে ভিভিআইপিদের থাকা বাবদ হোটেল খরচ হিসেবে ৩ লাখ ৮০ হাজার রুপি দিয়েছে দূতাবাস। প্রতিদিনের বারাদ্দ ছিল এক লাখ ৩১ হাজার রুপি। স্থানীয় সফরে দেখানো হয়েছে ১৯ হাজার ৪০৫ রুপি। টাইমস অব ইন্ডিয়ার রিপোর্ট অনুযায়ী, চীন সফরে সরকার হোটেলে থাকা বাবদ এক কোটি ৬ লাখ রুপি, যানবাহন ভাড়া বাবদ ৬০ লাখ ৮৮ হাজার রুপি, বিমান সংক্রান্ত ৫ লাখ ৯০ হাজার রুপি ও কর্মকর্তাদের প্রতিদিনের বরাদ্দ ছিল ৯ লাখ ৮০ হাজার রুপি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরে খরচ হয়েছে এক কোটি ৩৫ লাখ রুপি। হোটেল ভাড়া খাতে খরচ হয়েছে ১৯ লাখ ৩৫ হাজার রুপি। প্রধানমন্ত্রীর হেয়ারিং ডিভাইস ও ট্রানশ্লেসন ডিভাইস খাতে খরচ হয়েছে ২৮ লাখ ৫৫ হাজার রুপি। ইন্টারনেট চার্জ দেয়া হয়েছে ১৩ লাখ ৮৩ হাজার রুপি।

সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া এবং এনডিটিভি।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি