বুধবার,১৯শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ


কুমিল্লায় মাদক সেবনে বাধা দেয়ায় বসতঘরে অগ্নিকান্ড


পূর্বাশা বিডি ২৪.কম :
২৮.১২.২০২১

স্টাফ রিপোর্টারঃ

কুমিল্লার মুরাদনগরে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। সোমবার দিবাগত রাত সাড়ে ৪টার দিকে উপজেলা সদরের মহিনষা বাড়ির পাশে এ ঘটনা ঘটে। এতে সম্পূর্ণ পুড়ে ছাই হয়ে গেছে বসতঘর। ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট ঘটনাস্থলে এসে এ আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এতে প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতির হয়েছে বলে জানান ভুক্তভোগী পরিবারের সদস্যরা।

বাড়ির মালিক গিয়াস উদ্দিন বলেন, আমি এ বাড়িতে থাকিনা। আমার শ্যালিকা তার ছেলে মেয়েদেরকে নিয়ে থাকে। আগুন লাগার খবর পেয়ে আমি আসি। এসে দেখি ঘরে থাকা ফ্রিজ, আলমারি, গয়না, নগদ টাকা, সকল জিনিসপত্রসহ সম্পূর্ণ ঘর পুড়ে গেছে। তিনি আরো বলেন, বাড়ির আশে-পাশে রাতের বেলায় অপরিচিত অনেক বখাটে ছেলে মাদক সেবন করে।

তাদেরকে অনেকবার আমি ও আমার শ্যালিকা বাঁধা দিয়েছি। আমার সন্দেহ তারা এখানে মাদক সেবন করতে বাধা দেয়ার ফলে এই অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটাতে পারে। এ ব্যপারে আমি থানায় একটি সাধারন ডায়েরী করেছি।’

গিয়াস উদ্দিনের শ্যালিকা পারভীন আক্তার বলেন, ‘বাড়িতে যখন আগুন লেগেছে, তখন আমি বাসায় ছিলাম না। শাশুড়ির অসুস্থতার খবর পেয়ে কয়েকদিন আগে শশুর বাড়িতে চলে যাই। ঘরে বিদ্যুৎ-সংযোগও বন্ধ ছিল। কিভাবে আগুন লেগেছে বুঝতে পারছিনা।’

ক্ষতিগ্রস্থ পারভিন আক্তারের ভাই রাসেল মিয়া বলেন, ‘আমাদের বাড়ি কাছাকাছিই। রাত ১০টার দিকেও আমি বাড়ি ঘর দেখে গেছি। কোন সমস্যা দেখিনি। শত্রæতা বসত কেউ এ কাজ করতে পারে।এ ছাড়া আগুন লাগার কোন কারণ দেখি না।’

প্রতিবেশী মোতালেব মিয়া বলেন, ‘রাত সাড়ে তিনটার দিকে আগুন দেখে এলাকাবাসীকে ডাকতে থাকি। পরে এলাকাবাসীসহ আমরা আগুন নেভানোর চেষ্টা করি। আগুন বেশি থাকায় কাছে যেতে পারিনি। পরে ফায়ার সার্ভিস এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।’

ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন মাস্টার নুরুল হুদা নয়ন বলেন, ‘খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে দ্রুত আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।’

মুরাদনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসিম বলেন, অগ্নিকান্ডের ঘটনায় একটি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি